ঈদের আগের দিন সাগরে ভেসে উঠল রুয়েট শিক্ষার্থীর লাশ

ঈদের আগের দিন সাগরে ভেসে উঠল রুয়েট শিক্ষার্থীর লাশ

কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে গোসল করতে নেমে ভেসে যাওয়া রুয়েটের শিক্ষার্থী আরিফুল ইসলামের (২০) লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

রোববার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে শহরের নাজিরারটেক পয়েন্ট থেকে লাশটি উদ্ধার করে পুলিশ।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ট্যুরিস্ট পুলিশের এসপি মো. জিল্লুর রহমান।

আরিফুল ইসলাম কক্সবাজার শহরের দক্ষিণ রুমালিয়ারছরা এলাকার বাসিন্দা সৌদি প্রবাসী জাহাঙ্গীর আলমের ছেলে। তিনি রাজশাহী ইউনিভার্সিটি অব ইঞ্জিনিয়ারিং এন্ড টেকনোলজির (রুয়েট) কম্পিউটার সাইয়েন্সের ১৭ তম ব্যাচের ছাত্র ছিলেন।

আরিফুল ২০১৫ সালে কক্সবাজার সরকারি উচ্চবিদ্যালয় থেকে এসএসসি এবং ২০১৭ সালে কক্সবাজার সরকারি কলেজ থেকে এইচএসসি পাশ করেন।

এসপি মো. জিল্লুর রহমান জানান, শনিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে আরিফুল ইসলামসহ ৫ বন্ধু কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতের বালিয়াড়িতে ফুটবল খেলে সমুদ্রে গোসল করতে নামলে ৫ জনই উত্তাল সমুদ্রের ভাটার টানে ভেসে যায়। পরে আহমেদ কাদের, ইমরুল শাহেদ ও মোবাশ্বেরুল ইসলামকে লাইফগার্ডের কর্মীরা উদ্ধার করলেও রফিক মাহমুদ (২১) ও রুয়েটের ছাত্র আরিফুল ইসলাম (২০) নিখোঁজ হন।

একইদিন বিকাল পৌনে ৫টার দিকে সমুদ্র সৈকতের ডায়াবেটিক পয়েন্টে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরিরা রফিক মাহমুদের লাশ উদ্ধার করে। ঘটনার প্রায় ২২ ঘণ্টা পর রোববার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে আরিফুল ইসলামের লাশ পাওয়া যায়।