সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরছেন করোনায় আক্রান্ত দুই রোগী

সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরছেন করোনায় আক্রান্ত দুই রোগী

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত আরও দুই রোগী হাসপাতালে চিকিৎসা শেষে সুস্থ হয়ে উঠেছেন। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নির্দেশনা ও সংজ্ঞা অনুযায়ী ২৪ ঘণ্টার ব্যবধানে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ব্যক্তির নমুনা পরীক্ষার ফলাফল নেগেটিভ এলে তাকে করোনামুক্ত ঘোষণা করা হয়। সে হিসেবে আক্রান্ত দুজনের নমুনা পরীক্ষার ফলাফল নেগেটিভ এসেছে।

আজকালের মধ্যে তারা বাড়ি ফিরে যাবেন। এনিয়ে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত মোট পাঁচ রোগী সুস্থ হলেন। ইতোপূর্বে আক্রান্ত তিনজন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে যান- বলেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানের (আইইডিসিআর) পরিচালক অধ্যাপক ডা. মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা।

রোববার বিকেলে রাজধানীর মহাখালীর বাংলাদেশ কলেজ অব ফিজিসিয়ানস অ্যান্ড সার্জনস (বিসিপিএস) মিলনায়তনে আইইডিসিআর পরিচালক মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা এসব তথ্য জানান।

সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, দেশে নতুন করে করোনাভাইরাসে আরও তিনজন আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে দেশে মোট করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়াল ২৭ জনে। তাদের মধ্যে দুজন মারা গেছেন। বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ২০ জন।

‘নতুন যে তিনজন আক্রান্ত হয়েছেন, তাদের মধ্যে একজন নারী, দুজন পুরুষ। দুজন বাইরে থেকে এসেছেন। অপরজন আরেক অসুস্থ রোগীর সংস্পর্শে থেকে আক্রান্ত হয়েছেন। ভাইরাসে এ তিনজন আক্রান্ত হলেও তাদের মধ্যে উপসর্গ মৃদুই লক্ষ্য করা গেছে।’

তিনি আরও বলেন, গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে ৬৫ জনের। মোট নমুনা সংগ্রহ হয়েছে ৫৬৪ জনের। আগে সুস্থ হওয়া তিনজনসহ মোট পাঁচজন বাড়ি ফিরেছেন। গত ২৪ ঘণ্টায় আইইডিসিআর হটলাইনে কল এসেছে ৩ হাজার ৮১২টি। এর মধ্যে ৩ হাজার ৭২৫টি কল করোনা-সংক্রান্ত।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ থেকে নিজেকে সুরক্ষায় করণীয় বিষয়েও পরামর্শ দেন আইইডিসিআর পরিচালক।

এদিকে মিরপুরের ৭৩ বছর বয়সী এক বাসিন্দা একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। এ বিষয়ে পরে জনানো হয় যে, তিনি করোনায় আক্রান্ত ছিলেন। এছাড়া করোনাভাইরাসে আক্রান্ত সন্দেহে সিলেটে আইসোলেশন ইউনিটে চিকিৎসাধীন এক নারীও মারা গেছেন। যুক্তরাজ্যফেরত ওই নারীর মুখের লালাসহ অন্যান্য নমুনা সংগ্রহ করা হবে বলে জানিয়েছে আইইডিসিআর। কিন্তু এ দুজনের মৃত্যুর বিষয়ে সংবাদ সম্মেলনে কিছু বলা হয়নি।

দেশে করোনার সংক্রমণ প্রতিরোধে এরই মধ্যে দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। কড়াকড়ি আরোপ করা হয়েছে সভা-সমাবেশ ও গণজমায়েতের ওপর। চারটি দেশ ও অঞ্চল ছাড়া সব দেশ থেকেই যাত্রী আসা বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। মুলতবি করা হয়েছে জামিন ও গুরুত্বপূর্ণ বিষয়াদি ছাড়া নিম্ন আদালতের বিচারিক কাজ। এমনকি মাদারীপুরের শিবচর উপজেলাকে লকডাউনও ঘোষণা করা হয়েছে।

নিউজ সোর্স: জাগো নিউজ