আত্মসমর্পণ করে ফুল হাতে দাঁড়িয়ে সাতক্ষীরার ১৫ চোরাচালানি

আর নয় চোরাচালান। এবার স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসার অঙ্গীকার করে পুলিশের কাছে আত্মসমর্পণ করেছেন সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ঝাউডাঙ্গা ইউনিয়নের গোবিন্দকাটি গ্রামের ১৫ চোরাচালানি। তাদের ফুল দিয়ে স্বাগত জানানো হয়। এ সময় তারা লিখিত অঙ্গীকার করেন।

শনিবার সদর থানা চত্বরে এসে আত্মসমর্পণ করেন তারা।

জানা যায়, ১৫ জন দীর্ঘদিন ধরে চোরাচালানের সঙ্গে জড়িত থেকে বাংলাদেশের পণ্য ভারতে এবং ভারতের পণ্য বাংলাদেশে পাচার করে আসছিলেন। এক বা একাধিক সিন্ডিকেট করে তারা চোরাচালানে নিজেদের জড়িয়ে রেখেছিলেন। চোরাচালানে ঘৃণা ছুড়ে দিয়ে এখন থেকে তারা ভিন্ন কর্মসংস্থান বেছে নেবেন বলে জানিয়েছেন।

সদর থানার ওসি মোস্তাফিজুর রহমান জানান, তারা নিজেদের উপলব্ধি থেকে শনিবার সদর থানা চত্বরে এসে আত্মসমর্পণ করেন। তাদের ফুল দিয়ে স্বাগত জানানো হয়। এ সময় তারা লিখিত অঙ্গীকার করেন।

তাদের বিরুদ্ধে থাকা মামলাগুলো দ্রুত নিষ্পত্তির ব্যবস্থা করা হবে।

আত্মসমর্পণকারীরা হলেন- জামাল হোসেন, মনিরুল ইসলাম মনি, মো. আলাউদ্দিন, ফারুক হোসেন, বাবলুর রহমান, আলী হোসেন, শহীদ হোসেন, কামরুজ্জামান রানা, মফিজুল ইসলাম, জিয়ারুল ইসলাম, মিজানুর টিক্কা, শাহিন, আজিজ ও আজিজার রহমান।

Leave a Reply

Your email address will not be published.