রাজকীয় দায়িত্ব ছাড়ছেন হ্যারি-মেগান

ব্রিটিশ রাজপরিবার থেকে দায়িত্ব ছাড়ছেন প্রিন্স হ্যারি ও মেগান মার্কলে। প্রথম সারির সদস্য থেকে সরে দাঁড়িয়ে ব্রিটিশ রাজপরিবারকে হতভম্ব করে দিয়েছেন তারা। রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের সঙ্গে কোনো আলোচনা না করেই তারা এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। ঘোষণায় এই দম্পতি জানিয়েছেন, তারা উত্তর আমেরিকায় বসবাস করবেন এবং গণমাধ্যমের সঙ্গে দীর্ঘ-প্রতিষ্ঠিত সম্পর্কচ্ছেদও ঘটাবেন।

রাজপরিবারের কর্ণধার রানি কিংবা বাবা প্রিন্স চার্লসকে না জানিয়েই তারা এই আকস্মিক ঘোষণা দিয়েছেন বলে গণমাধ্যমের খবর জানিয়েছে। এই দম্পতি জানায়, রাজপরিবারের সদস্য হিসেবে তাদের গণমাধ্যমের নজরে থাকতে হচ্ছে। এতে তাদের ব্যক্তিগত জীবন অসুবিধায় পড়ছে। প্রিন্স উইলিয়ামের সঙ্গেও তার দূরত্ব তৈরি হয়েছে। তাদের নিয়ে প্রকাশিত নেতিবাচক খবরের প্রতিক্রিয়াও দেখিয়েছেন বাজেভাবে।

বাকিংহাম প্রাসাদ থেকে প্রকাশিত এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, রাজপরিবারের জ্যেষ্ঠ সদস্যের পদ থেকে আমরা সরে আসার ইচ্ছা প্রকাশ করছি। অর্থনৈতিকভাবে আমরা স্বাধীন হতেই কাজ করব। এ সময় রানির প্রতি অব্যাহত সমর্থন রাখার কথাও জানিয়েছেন তারা। তারা উল্লেখ করেন, চলতি বছরকে আমরা একটি ক্রান্তিকাল হিসেবে বেছে নিয়েছি। এই প্রতিষ্ঠানের ভেতর একটি প্রগতিশীল নতুন ভূমিকা পালনের কাজ শুরু করে দিয়েছি। কাজেই উত্তর আমেরিকা ও যুক্তরাজ্যের মধ্যে আমাদের সময়ের একটি ভারসাম্য নির্ধারণের পরিকল্পনা করেছি। সন্তান আর্চির বেড়ে ওঠার পাশাপাশি নতুন একটি দাতব্য সংস্থা খোলার পরিকল্পনা বাস্তবায়নে ‘এই ভৌগোলিক ভারসাম্য’ সহায়ক হবে বলে যুক্তি দিয়েছেন তারা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

shares